শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ০৪:৩৩ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
বেতন বৈষম্য নিরসনের দাবীতে ভাঙ্গায় স্বাস্থ্য সহকারীদের কর্মবিরতি ও মানববন্ধন হযরত শাহ কবির (রহঃ) ৪০০ বছরেও অমলিন চুয়াডাঙ্গার গবেষক আমানতের নতুন কিছু মিরপুরের সাবেক এমপি মরহুম আলহাজ্ব হারুন-অর-রশিদ মোল্লার ২৮তম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত চেয়ারম্যানের উপর হামলা : জেলাজুড়ে বাস বন্ধ করে অভিযুক্তদের গ্রেফতার দাবি বরগুনায় যুবলীগ নেতা ইউপি চেয়ারম্যানকে কুপিয়ে গুরুতর জখম সাভার হেমায়েতপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় এক যুবক নিহত মিরপুর প্রেসক্লাবে দিনব্যাপী উন্নয়ন সাংবাদিকতার কর্মশালা অনুষ্ঠিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শ্রদ্ধা নিবেদন বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে কলাবাগান থানা ছাত্রলীগের শ্রদ্ধা নিবেদন 
ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন এর আওতাধীন কর অঞ্চল ১-১০ পর্যন্ত ট্রেড লাইসেন্স শাখার বিভিন্ন অনিয়ম

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন এর আওতাধীন কর অঞ্চল ১-১০ পর্যন্ত ট্রেড লাইসেন্স শাখার বিভিন্ন অনিয়ম

স্টাফ রিপোর্টার
বিভিন্ন অঞ্চল ঘুরে প্রতিবেদনটি সংগ্রহ করেছেন সিনিয়র সাংবাদিক মোঃ আবু তালেব সংবাদ ও তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে যে সকল বিষয় মোকাবিলা করেন তাহার বর্ননা তুলে ধরেছেন। তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে বলছিলেন কর অঞ্চল -১ এর কর কর্মকর্তা মোঃ লিয়াকত আলী মিয়া, তার কাছ থেকে জানতে চাই ট্রেড লাইসেন্স এর ব্যাপারে আপনার এখানে কোন অনিয়ম আছে কিনা ? তিনি আমাকে বলেন, আমার এখানে অনিয়মের কোন সুযোগ নেই, তবে অফিসের বাহিরে কিছু কিছু দালাল চক্র আছে। কথা হয়েছে কর অঞ্চল -২ এর কর কর্মকর্তার সাথে, আমার এখানে ২জন সুপারভাইজার আছে তারা অত্যান্ত নিষ্ঠার সাথে কাজ করে বলে আমি মনে করি। আরেক প্রশ্নের উত্তরে তিনি আমাকে জানান,অনিয়মের তেমন কিছু আমার অঞ্চলে নাই বললেই চলে। কর অঞ্চল-৩ ও ৯ এর কর কর্মকর্তা মোঃ তছলিম উদ্দীন এর সাথে কথা বলি,সেখান থেকে ঘুরে এসে আমি যা পাই; তিনি আমাকে বলেন,আমার দক্ষ জনবল প্রয়োজন এবং আমার এখানে জনবলের ঘাটতি রয়েছে। যদি উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এই জনবলের চাহিদা পূরণ করেন তা হলে আমার কাজ করতে সুবিধা হয়। এক পর্যায়ে কথা বলছিলাম কর অঞ্চল-৪ এর কর কর্মকর্তা মোঃ আজিজুর রহমান (বিবিধ শাখা) এর সাথে। কথা বলে জানতে পারি অত্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবে তার অঞ্চল চলছে বলে তিনি মনে করেন। আর অনিয়মের ব্যাপারে তিনি বলেন সবটা সত্য নয়, সেরকম কোনো দালালচক্র আমার এখানে নাই বললেই চলে। এছাড়াও কর অঞ্চল-৫ এর কর কর্মকর্তা মোঃ শাহিনুর ইসলাম দেওয়ান এর সাথে কথা বলে জানতে পারি দক্ষ জনবল বাড়িয়ে দিলে তাঁর কাজ করতে সুবিধা হয় । আমার সহকর্মীরা যারা আছেন তারা অত্যন্ত নিষ্ঠার সাথে কাজ করছে বলে আমি মনে করি। এক পর্যায়ে মোঃ শাহিনুর ইসলাম দেওয়ান বলেন, আমি কর অঞ্চল-১০ এর দায়িত্ব ও পালন করছি।

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved 2018 khoborbangladesh.com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com