ঢাকা ০৫:২৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
আদমদীঘিতে শিশু ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ: গ্রেফতার-১ মহম্মদপুরে হত্যার মামলার আসামি জামিনে এসে বাদিকে মামলা তুলে নেয়ার হুমকি, পরে মারধর আ.লীগ নেতার হুমকিতে নিরাপত্তাহীনতায় আইসক্রিম ফাক্টরি মালিক কালিহাতীতে লিঙ্গ কাটার অভিযোগ স্ত্রী’র বিরুদ্ধে ফিটনেস বিহীন নৌযানে সয়লাব সদরঘাট,নেই পর্যাপ্ত দক্ষ নাবিক! ৫০ কোটি টাকার মামলা থেকে বাঁচতে প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তার পাল্টা মামলা! ফরিদপুরে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় তোলপাড় রশুনিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা পর্ষদের নব সভাপতি হলেন আবু সাঈদ মির্জাগঞ্জে আমর্ড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন) উদ্যোগে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ মাগুরার হৃদয়পুরে ফসলি জমির টপসয়েল মাটিকাটার অভিযোগ, ইউএনওর হস্তক্ষেপে কাজ বন্ধ

মাদারীপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতার ফলজ গাছ কেটে দিল দারোগা পরিবার

কালকিনি প্রতিনিধি :
মাদারীপুরের কালকিনিতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে কালকিনি উপজেলার পৌরসভার চামচরী গ্রামের উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি মোঃ সাইফুর রহমার রনির বাগানের বিভিন্ন ধরনের ফলজ গাছ কেটে নষ্ট করার অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষ পুলিশের এস.আই মিজান ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার সকালে কালকিনি উপজেলার পৌরসভার লামচরী গ্রামের মোঃ সাইফুর রহমান রনির বাগানের লেবু, কলাগাছসহ বিভিন্ন ধরনের ফলজের গাছ কেটে ফেলে বিনষ্ট করা হয়। বৃহস্পতিবার সকালে বাগানের সব গাছ কাটা অবস্থায় দেখতে পেয়ে সাইফুর রহমান রনি সালাম হাওলাদার ও তার ভাই সেলিম হাওলাদারকে খবর দেয়। সেলিম হাওলাদার এসে নিজ চোখে দেখে লেবু ও কলা গাছ সহ বিভিন্ন ধরনের ফলজ গাছ কেটে বিনষ্ট করেছে। এ ঘটনায় কালকিনি থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন সাইফুর রহমান রানি। স্বেচ্ছাসেকলীগ নেতা রনি, পূর্ব পুরুষ থেকে লামচরী মৌজার ওই জমিটি ভোগ দখল করে আসছেন তিনি। এছাড়া রেকর্ড সংক্রান্ত একটি মামলা হলে তাতেও রায় পেয়েছেন রনির পরিবার। এর মধ্যে কোন কথা না থাকলেও সম্প্রতি ওই জমি পুনরায় দাবি করে হুমকি ধামকি দিচ্ছিল প্রতিপক্ষরা। এনিয়ে একাধিক গ্রাম্য সালিশেও তিনি রায় পেয়েছেন। ফলে প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে গত বৃহস্পতিবার সকাল ১২.৩০ মিনিটে এসআই মিজান মুঠো ফেনে তার স্ত্রী রুবিকে গাছ কেটে ফেলার অন্ডার করে,অর্ডার পেয়ে রুবি ও তার বোনকে নিয়ে গাছগুলো কেটে নষ্ট করে। রনির দাবি, জমি নিয়ে দ্বন্দ্ব তারপরও কেন ফলজ গাছগুলি কেটে বিনষ্ট করা হলো। তিনি তার ফল ধরা গাছের ক্ষতিপূরণ ও হামলার তদন্ত করে বিচার দাবি করেন। অভিযুক্ত এসআই মিজানের স্ত্রী রুবি বেগম ফলজ গাছ কাটার কথা সাংবাদিকদের কাছে স্বীকার করেছেন তবে তাদের বিরুদ্ধে আনা অনেক অভিযোগকে মিথ্যা দাবি করে বলেন, জমির মালিক বাড়াবাড়ি করার কারনে ফলজ গাছ কেটে দখল নিয়েছেন মাত্র, কোন স্থায়ী গাছ কাটা হয়নি। জমিটি তাদেরই। কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত (ওসি) নাসির উদ্দিন বলেন, এ ব্যাপারে অভিযোগ পাওয়ার পর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করবে। তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

আদমদীঘিতে শিশু ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ: গ্রেফতার-১

মাদারীপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতার ফলজ গাছ কেটে দিল দারোগা পরিবার

আপডেট টাইম : ০২:৫১:০৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৯ মে ২০২২

কালকিনি প্রতিনিধি :
মাদারীপুরের কালকিনিতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে কালকিনি উপজেলার পৌরসভার চামচরী গ্রামের উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি মোঃ সাইফুর রহমার রনির বাগানের বিভিন্ন ধরনের ফলজ গাছ কেটে নষ্ট করার অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষ পুলিশের এস.আই মিজান ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার সকালে কালকিনি উপজেলার পৌরসভার লামচরী গ্রামের মোঃ সাইফুর রহমান রনির বাগানের লেবু, কলাগাছসহ বিভিন্ন ধরনের ফলজের গাছ কেটে ফেলে বিনষ্ট করা হয়। বৃহস্পতিবার সকালে বাগানের সব গাছ কাটা অবস্থায় দেখতে পেয়ে সাইফুর রহমান রনি সালাম হাওলাদার ও তার ভাই সেলিম হাওলাদারকে খবর দেয়। সেলিম হাওলাদার এসে নিজ চোখে দেখে লেবু ও কলা গাছ সহ বিভিন্ন ধরনের ফলজ গাছ কেটে বিনষ্ট করেছে। এ ঘটনায় কালকিনি থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন সাইফুর রহমান রানি। স্বেচ্ছাসেকলীগ নেতা রনি, পূর্ব পুরুষ থেকে লামচরী মৌজার ওই জমিটি ভোগ দখল করে আসছেন তিনি। এছাড়া রেকর্ড সংক্রান্ত একটি মামলা হলে তাতেও রায় পেয়েছেন রনির পরিবার। এর মধ্যে কোন কথা না থাকলেও সম্প্রতি ওই জমি পুনরায় দাবি করে হুমকি ধামকি দিচ্ছিল প্রতিপক্ষরা। এনিয়ে একাধিক গ্রাম্য সালিশেও তিনি রায় পেয়েছেন। ফলে প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে গত বৃহস্পতিবার সকাল ১২.৩০ মিনিটে এসআই মিজান মুঠো ফেনে তার স্ত্রী রুবিকে গাছ কেটে ফেলার অন্ডার করে,অর্ডার পেয়ে রুবি ও তার বোনকে নিয়ে গাছগুলো কেটে নষ্ট করে। রনির দাবি, জমি নিয়ে দ্বন্দ্ব তারপরও কেন ফলজ গাছগুলি কেটে বিনষ্ট করা হলো। তিনি তার ফল ধরা গাছের ক্ষতিপূরণ ও হামলার তদন্ত করে বিচার দাবি করেন। অভিযুক্ত এসআই মিজানের স্ত্রী রুবি বেগম ফলজ গাছ কাটার কথা সাংবাদিকদের কাছে স্বীকার করেছেন তবে তাদের বিরুদ্ধে আনা অনেক অভিযোগকে মিথ্যা দাবি করে বলেন, জমির মালিক বাড়াবাড়ি করার কারনে ফলজ গাছ কেটে দখল নিয়েছেন মাত্র, কোন স্থায়ী গাছ কাটা হয়নি। জমিটি তাদেরই। কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত (ওসি) নাসির উদ্দিন বলেন, এ ব্যাপারে অভিযোগ পাওয়ার পর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করবে। তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।