ঢাকা ০২:৪৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
দ্বাদশ জাতীয় সংসদের পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির তৃতীয় বৈঠক অনুষ্ঠিত ৫ বছরের অধিক প্রেষনে দায়িত্ব পালন করছেন চীফ ইঞ্জিনিয়ার মঞ্জুরুল কবীর! বিআইডব্লিউটিএর অতি: পরিচালক আরিফ উদ্দিনের সম্পদের পাহাড়! শাহআলীতে গৃহবধূকে গলা কেটে হত্যাকারি পলাতক স্বামী গ্রেফতার  অতি:পরিচালক আরিফ উদ্দিন এখন বিআইডব্লিউটিএ‘র অঘোষিত “রাজা”! সাভারে এক ইউপি চেয়ারম্যানের সম্পদের পাহাড়! সিরাজদিখানে মঈনুল হাসান নাহিদকে বিকল্প ধরার সমর্থন মির্জাগঞ্জের ইউ,পি সচিব পরকীয়া প্রেমিকার হত্যাকাণ্ডে পুলিশ হেফাজতে শেষ মুহূর্তের প্রচারণায় মানুষের ভালবাসায় আমি মুগ্ধ: চেয়ারম্যান প্রার্থী পলাশ মানবতার আড়ালে ভয়ংকর ফয়সাল বাহিনী, পিস্তল ঠেকিয়ে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ

শাহজালালে দুই লাখের বেশি ডলার নিয়ে দুই যাত্রী ধরা

নিজস্ব প্রতিবেদক :

ঘোষণা ছাড়াই দুই লাখ ৩০ হাজার মার্কিন ডলার নিয়ে বিদেশে যাওয়ার পথে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দুই যাত্রীকে আটক করেছে ঢাকা কাস্টমস হাউজ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ঢাকা কাস্টমস হাউজের প্রিভেন্টিভ বিভাগের কর্মকর্তা মোহাম্মদ হারুন।

তিনি জানান, মাহমুদা ফিরোজকে বুধবার সন্ধ্যায় ৩০ হাজার ৫০০ ডলারসহ ৭ নম্বর বোর্ডিং গেইটে আটক করা হয়। ওই ডলার নিয়ে তিনি যুক্তরাষ্ট্রে যাচ্ছিলেন।

পরে রাত সাড়ে ৯টার দিকে ১০ নম্বর বোর্ডিং গেইট থেকে আটক করা হয় তুরস্কের নাগরিক মেহমাত রেজমিকে। তিনি কোনো ঘোষণা না দিয়েই দুই লাখ ডলার নিয়ে টার্কিশ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইটে তুরস্কে যাচ্ছিলেন।

মেহমাত রেজমিকে আটক করার পর তার ব্যাগ তল্লাশি করে প্রথমে এক লাখ ২০ হাজার ডলার পাওয়া যায়। তারপরে তার দেহ তল্লাশি করে আরও ৮০ হাজার ডলার উদ্ধার করা হয়।

বাংলাদেশ থেকে একজন যাত্রী বিদেশে যাওয়ার সময় ১০ হাজার মার্কিন ডলার বা সমমূল্যের বিদেশি মুদ্রা সঙ্গে রাখতে পারেন। এর বেশি অর্থ সঙ্গে থাকলে শুল্ক কর্তৃপক্ষের কাছে এফএমজে ফরমে ঘোষণা দিতে হয়।

মোহাম্মদ হারুন বলেন, মাহমুদা ফিরোজ ঢাকার নিউ মার্কেট এলাকায় থাকেন। তার দুই ছেলে-মেয়ে থাকেন যুক্তরাষ্ট্রে। তিনি ৩০ হাজার ৫০০ ডলার নিয়ে তাদের কাছেই যাচ্ছিলেন।

আর তুরষ্কের যাত্রী মেহমাত প্রথম দফা ঢাকায় আসেন ২০২১ সালের ১৮ ডিসেম্বর। এরপর ফিরেও যান। পরে গত ২৪ মে আবার ঢাকা আসেন। তিনি কী করেন, কেন ঢাকায় এসেছিলেন এ বিষয়ে কোনো তথ্য তার কাছ থেকে আদায় করা যায়নি। তিনি তুর্কি ভাষায় কথা বলছিলেন।

বাংলাদেশি যাত্রী মাহমুদার বিরুদ্ধে রাতেই বিমানবন্দর থানায় একটি মামলা হয়েছে। তুরস্কের যাত্রীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে সকালে। দুজনকেই পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

দ্বাদশ জাতীয় সংসদের পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির তৃতীয় বৈঠক অনুষ্ঠিত

শাহজালালে দুই লাখের বেশি ডলার নিয়ে দুই যাত্রী ধরা

আপডেট টাইম : ১০:১৯:৫৩ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ জুন ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক :

ঘোষণা ছাড়াই দুই লাখ ৩০ হাজার মার্কিন ডলার নিয়ে বিদেশে যাওয়ার পথে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে দুই যাত্রীকে আটক করেছে ঢাকা কাস্টমস হাউজ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ঢাকা কাস্টমস হাউজের প্রিভেন্টিভ বিভাগের কর্মকর্তা মোহাম্মদ হারুন।

তিনি জানান, মাহমুদা ফিরোজকে বুধবার সন্ধ্যায় ৩০ হাজার ৫০০ ডলারসহ ৭ নম্বর বোর্ডিং গেইটে আটক করা হয়। ওই ডলার নিয়ে তিনি যুক্তরাষ্ট্রে যাচ্ছিলেন।

পরে রাত সাড়ে ৯টার দিকে ১০ নম্বর বোর্ডিং গেইট থেকে আটক করা হয় তুরস্কের নাগরিক মেহমাত রেজমিকে। তিনি কোনো ঘোষণা না দিয়েই দুই লাখ ডলার নিয়ে টার্কিশ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইটে তুরস্কে যাচ্ছিলেন।

মেহমাত রেজমিকে আটক করার পর তার ব্যাগ তল্লাশি করে প্রথমে এক লাখ ২০ হাজার ডলার পাওয়া যায়। তারপরে তার দেহ তল্লাশি করে আরও ৮০ হাজার ডলার উদ্ধার করা হয়।

বাংলাদেশ থেকে একজন যাত্রী বিদেশে যাওয়ার সময় ১০ হাজার মার্কিন ডলার বা সমমূল্যের বিদেশি মুদ্রা সঙ্গে রাখতে পারেন। এর বেশি অর্থ সঙ্গে থাকলে শুল্ক কর্তৃপক্ষের কাছে এফএমজে ফরমে ঘোষণা দিতে হয়।

মোহাম্মদ হারুন বলেন, মাহমুদা ফিরোজ ঢাকার নিউ মার্কেট এলাকায় থাকেন। তার দুই ছেলে-মেয়ে থাকেন যুক্তরাষ্ট্রে। তিনি ৩০ হাজার ৫০০ ডলার নিয়ে তাদের কাছেই যাচ্ছিলেন।

আর তুরষ্কের যাত্রী মেহমাত প্রথম দফা ঢাকায় আসেন ২০২১ সালের ১৮ ডিসেম্বর। এরপর ফিরেও যান। পরে গত ২৪ মে আবার ঢাকা আসেন। তিনি কী করেন, কেন ঢাকায় এসেছিলেন এ বিষয়ে কোনো তথ্য তার কাছ থেকে আদায় করা যায়নি। তিনি তুর্কি ভাষায় কথা বলছিলেন।

বাংলাদেশি যাত্রী মাহমুদার বিরুদ্ধে রাতেই বিমানবন্দর থানায় একটি মামলা হয়েছে। তুরস্কের যাত্রীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে সকালে। দুজনকেই পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।