ঢাকা ০৫:০৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
ভূল অসত্য সংবাদ পরিবেশন করায় ব্যবসায়ীর  সংবাদ সম্মেলন কেটালী পাড়ায় দিনে দুপুরে সরকারী কোয়াটারে চুরি জনবান্ধব ভূমি সংস্কারে অগ্রাধিকার দিচ্ছে সরকার: ভূমিমন্ত্রী ভূমি অফিসে যেন কোনো দালাল না থাকে: মন্ত্রী ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার শাহীন আলম বিলাশবহুল ৮তলা বাড়ীর মালিক! মুক্তিযুদ্ধের চলচ্চিত্র ‘অপারেশন জ্যাকপট’ নিয়ে এতো অনাসৃষ্টি কেন? চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও প:প: কর্মকর্তা ডা: শোভন দত্তের বিরুদ্ধে সরকারী টাকা আত্মসাত,বিদেশে টাকা পাচার,অবৈধ সম্পদ অর্জন ও নারী কেলেংকারীর অভিযোগ! দদুকের তদন্ত থাকা কর্মকর্তাকে চুক্তিভিত্তিক ডিজি নিয়োগের তোড়জোড়! গাজীপুর সিটি করপোরেশনের গাড়িচাপায় শ্রমিক নিহত, মহাসড়ক অবরোধ মির্জাগঞ্জে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও  শহীদ  দিবসে বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির শ্রদ্ধা নিবেদন 

আ.লীগের এমপি হতে চান, ছাড়ছেন না অভিনয়ও: জানালেন মাহিয়া মাহি

খবর বাংলাদেশ :

রাজনীতির মঞ্চে শিল্পীদের যোগ দেওয়া নতুন কিছু নয়। এই তালিকায় সম্প্রতি যুক্ত হয়েছেন চলচ্চিত্র অভিনেত্রী মাহিয়া মাহি। চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন তিনি। রাজনৈতিক ভাবনা নিয়ে অভিনেত্রীর সঙ্গে কথা বলেছেন শিহাব আহমেদ।

উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন। মনোনয়ন পাওয়ার ব্যাপারে কতটুকু আশাবাদী?
আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিজে একজন নারী, আর সব সময় নারী নেতৃত্বকে অগ্রাধিকার দিচ্ছেন। প্রত্যাশা করছি, প্রধানমন্ত্রী আমাকে নমিনেশন দিয়ে মানুষের জন্য কাজ করার সুযোগ দেবেন।

আজকের পত্রিকা অনলাইনের সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন
এলাকায় জনসংযোগ শুরু করেছেন?
অনেক দিন ধরেই স্থানীয় মানুষের সঙ্গে কথা বলছি। তাদের কাছ থেকে অনেক ভালোবাসা পেয়েছি। এ ছাড়া স্থানীয় নেতারা আমাকে অনেক সাপোর্ট করছেন। যখন জনসংযোগে বের হচ্ছি, তখন সবাই পাশে থাকছেন। সবকিছু মিলিয়ে দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, নমিনেশন পেলে নৌকা প্রতীকের জয় আনতে পারব।

যদি মনোনয়ন না পান, সে ক্ষেত্রে কী করবেন?
জনগণের কল্যাণে দল যদি অন্য কাউকে মনোনয়ন দেয়, তা মেনে নেব। আমার দলের যিনি মনোনয়ন পাবেন, আমি তাঁর হয়ে মাঠে কাজ করব।

আপনি সিনেমার মানুষ। রাজনীতির সঙ্গে জড়ানোর উদ্দেশ্য কী?
ছোট পরিসরে এলাকায় যেসব জনকল্যাণমূলক কাজ করার চেষ্টা করে আসছি দীর্ঘদিন ধরে, সেগুলো বড় পরিসরে করার জন্যই রাজনীতিতে আসা।

রাজনীতি কতটা চ্যালেঞ্জিং মনে হচ্ছে?
সব জায়গায় ভালো কাজ করতে গেলে বাধা আসবেই। যখন চলচ্চিত্রে নতুন এসেছিলাম, সেই জার্নিটাও সহজ ছিল না। অনেক কষ্ট করেই নিজের অবস্থান তৈরি করতে হয়েছে। আমার এলাকায় যারা আওয়ামী লীগ করেন, তাঁরা সবাই খুব আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করেন। তাঁদের সহযোগিতায় এই জায়গাটা আমার জন্য অতটা কঠিন হবে না বলে আমার বিশ্বাস।

রাজনীতিতে আপনার আদর্শ কে?
অবশ্যই বঙ্গবন্ধু। সব সময় তাঁর আদর্শ ভেতরে লালন করে আসছি। এ ছাড়া আমি প্রধানমন্ত্রীকে অনুসরণ করি। তিনি যে পরিমাণ সাহসী, তার ছিটেফোঁটা যদি আমার ভেতরে লালন করি, তাহলে যত কঠিন অবস্থার সম্মুখীন হই না কেন, সেখানে ওভারকাম করতে পারব। আমি গর্বিত যে আওয়ামী লীগের মতো দলের মনোনয়ন কিনতে পেরেছি।

রাজনীতির মঞ্চে আসার অনুপ্রেরণা পেয়েছেন কার কাছ থেকে?
মূলত স্বামীর (রকিব সরকার) মাধ্যমে রাজনীতির ময়দানে পা রাখা। ওর অবদান বলে শেষ করতে পারব না। নমিনেশন কেনা পর্যন্ত আজকে আমি যে অবস্থানে দাঁড়িয়ে আছি, এটার পুরো অবদান তাঁর।

নৌকার মনোনয়ন পেলে এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন করব: মাহিয়া মাহিনৌকার মনোনয়ন পেলে এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন করব: মাহিয়া মাহি
সামনের বছরই জাতীয় নির্বাচন। যদি নমিনেশন পেয়ে নির্বাচিতও হন, এই অল্প সময়ে কী কী করার পরিকল্পনা আপনার?
আমার প্রধান দুটি লক্ষ্য আছে। প্রথম হচ্ছে, আমার এলাকার মানুষের অধিকার নিশ্চিত করা। দ্বিতীয় হচ্ছে, দেশজুড়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যে এত উন্নয়ন করেছেন, সে সম্পর্কে আমার এলাকার মানুষকে অবহিত করা। কারণ আমি বিশ্বাস করি প্রচারে প্রসার।

আপনি সন্তানসম্ভবা। এমন সময়ে রাজনীতিতে সক্রিয় হয়েছেন, কীভাবে সামলাচ্ছেন?
দুটোই অনেক খুশির খবর। আমার বেবি আমার জন্য লাকি। সে আসবে এমন সময়ে আওয়ামী লীগের নমিনেশন ফরম কিনলাম। আমার মনে হয় দুটি বিষয় খুব সুন্দরভাবে ম্যানেজ করতে পারব।

তাহলে অভিনয় কি ছেড়ে দিচ্ছেন
চলচ্চিত্র আমাকে মাহিয়া মাহি বানিয়েছে। অভিনয়টা আমার ভিত। ওটা ছাড়ব না। রাজনীতির মাধ্যমে মানুষের সেবাও করব, অভিনয়টাও চালিয়ে যাব।

অভিনয়ে ফিরছেন কবে?
সবাই জানেন, আমি একটা বিরতির মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। আশা করছি নতুন বছরের শেষ দিকে অভিনয়ে ফিরব।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

ভূল অসত্য সংবাদ পরিবেশন করায় ব্যবসায়ীর  সংবাদ সম্মেলন

আ.লীগের এমপি হতে চান, ছাড়ছেন না অভিনয়ও: জানালেন মাহিয়া মাহি

আপডেট টাইম : ০৯:৩৭:২২ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০২২

খবর বাংলাদেশ :

রাজনীতির মঞ্চে শিল্পীদের যোগ দেওয়া নতুন কিছু নয়। এই তালিকায় সম্প্রতি যুক্ত হয়েছেন চলচ্চিত্র অভিনেত্রী মাহিয়া মাহি। চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন তিনি। রাজনৈতিক ভাবনা নিয়ে অভিনেত্রীর সঙ্গে কথা বলেছেন শিহাব আহমেদ।

উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন। মনোনয়ন পাওয়ার ব্যাপারে কতটুকু আশাবাদী?
আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিজে একজন নারী, আর সব সময় নারী নেতৃত্বকে অগ্রাধিকার দিচ্ছেন। প্রত্যাশা করছি, প্রধানমন্ত্রী আমাকে নমিনেশন দিয়ে মানুষের জন্য কাজ করার সুযোগ দেবেন।

আজকের পত্রিকা অনলাইনের সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন
এলাকায় জনসংযোগ শুরু করেছেন?
অনেক দিন ধরেই স্থানীয় মানুষের সঙ্গে কথা বলছি। তাদের কাছ থেকে অনেক ভালোবাসা পেয়েছি। এ ছাড়া স্থানীয় নেতারা আমাকে অনেক সাপোর্ট করছেন। যখন জনসংযোগে বের হচ্ছি, তখন সবাই পাশে থাকছেন। সবকিছু মিলিয়ে দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, নমিনেশন পেলে নৌকা প্রতীকের জয় আনতে পারব।

যদি মনোনয়ন না পান, সে ক্ষেত্রে কী করবেন?
জনগণের কল্যাণে দল যদি অন্য কাউকে মনোনয়ন দেয়, তা মেনে নেব। আমার দলের যিনি মনোনয়ন পাবেন, আমি তাঁর হয়ে মাঠে কাজ করব।

আপনি সিনেমার মানুষ। রাজনীতির সঙ্গে জড়ানোর উদ্দেশ্য কী?
ছোট পরিসরে এলাকায় যেসব জনকল্যাণমূলক কাজ করার চেষ্টা করে আসছি দীর্ঘদিন ধরে, সেগুলো বড় পরিসরে করার জন্যই রাজনীতিতে আসা।

রাজনীতি কতটা চ্যালেঞ্জিং মনে হচ্ছে?
সব জায়গায় ভালো কাজ করতে গেলে বাধা আসবেই। যখন চলচ্চিত্রে নতুন এসেছিলাম, সেই জার্নিটাও সহজ ছিল না। অনেক কষ্ট করেই নিজের অবস্থান তৈরি করতে হয়েছে। আমার এলাকায় যারা আওয়ামী লীগ করেন, তাঁরা সবাই খুব আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করেন। তাঁদের সহযোগিতায় এই জায়গাটা আমার জন্য অতটা কঠিন হবে না বলে আমার বিশ্বাস।

রাজনীতিতে আপনার আদর্শ কে?
অবশ্যই বঙ্গবন্ধু। সব সময় তাঁর আদর্শ ভেতরে লালন করে আসছি। এ ছাড়া আমি প্রধানমন্ত্রীকে অনুসরণ করি। তিনি যে পরিমাণ সাহসী, তার ছিটেফোঁটা যদি আমার ভেতরে লালন করি, তাহলে যত কঠিন অবস্থার সম্মুখীন হই না কেন, সেখানে ওভারকাম করতে পারব। আমি গর্বিত যে আওয়ামী লীগের মতো দলের মনোনয়ন কিনতে পেরেছি।

রাজনীতির মঞ্চে আসার অনুপ্রেরণা পেয়েছেন কার কাছ থেকে?
মূলত স্বামীর (রকিব সরকার) মাধ্যমে রাজনীতির ময়দানে পা রাখা। ওর অবদান বলে শেষ করতে পারব না। নমিনেশন কেনা পর্যন্ত আজকে আমি যে অবস্থানে দাঁড়িয়ে আছি, এটার পুরো অবদান তাঁর।

নৌকার মনোনয়ন পেলে এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন করব: মাহিয়া মাহিনৌকার মনোনয়ন পেলে এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন করব: মাহিয়া মাহি
সামনের বছরই জাতীয় নির্বাচন। যদি নমিনেশন পেয়ে নির্বাচিতও হন, এই অল্প সময়ে কী কী করার পরিকল্পনা আপনার?
আমার প্রধান দুটি লক্ষ্য আছে। প্রথম হচ্ছে, আমার এলাকার মানুষের অধিকার নিশ্চিত করা। দ্বিতীয় হচ্ছে, দেশজুড়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যে এত উন্নয়ন করেছেন, সে সম্পর্কে আমার এলাকার মানুষকে অবহিত করা। কারণ আমি বিশ্বাস করি প্রচারে প্রসার।

আপনি সন্তানসম্ভবা। এমন সময়ে রাজনীতিতে সক্রিয় হয়েছেন, কীভাবে সামলাচ্ছেন?
দুটোই অনেক খুশির খবর। আমার বেবি আমার জন্য লাকি। সে আসবে এমন সময়ে আওয়ামী লীগের নমিনেশন ফরম কিনলাম। আমার মনে হয় দুটি বিষয় খুব সুন্দরভাবে ম্যানেজ করতে পারব।

তাহলে অভিনয় কি ছেড়ে দিচ্ছেন
চলচ্চিত্র আমাকে মাহিয়া মাহি বানিয়েছে। অভিনয়টা আমার ভিত। ওটা ছাড়ব না। রাজনীতির মাধ্যমে মানুষের সেবাও করব, অভিনয়টাও চালিয়ে যাব।

অভিনয়ে ফিরছেন কবে?
সবাই জানেন, আমি একটা বিরতির মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। আশা করছি নতুন বছরের শেষ দিকে অভিনয়ে ফিরব।