ঢাকা ০৫:৪৮ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
মির্জাগঞ্জে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও  শহীদ  দিবসে বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির শ্রদ্ধা নিবেদন  ৫২’র ভাষা শহীদদের প্রতি মিরপুর রিপোর্টার্স ক্লাবের শ্রদ্ধা নিবেদন প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরকে দুর্নীতির স্বর্গরাজ্যে পরিণত করেছেন ডিজি ডা: মো: এমদাদুল হক তালুকদার! বাসাবো এলাকায় রাজউকের উচ্ছেদ অভিযান; ৪ লক্ষ টাকা জরিমানা দুই সাব-রেজিস্ট্রারের বদলী উপলক্ষে বিদায় সংবর্ধনা দুর্নীতির বিরুদ্ধে শূন্য সহনশীল হবেন দুদক কর্মকর্তারা বলিষ্ঠ নেতৃত্বের মাধ্যমে ভূমি অফিস পরিচালনা করুন: ভূমিমন্ত্রী বাসাবো এলাকায় রাজউকের উচ্ছেদ অভিযান; ৪ লক্ষ টাকা জরিমানা মাগুরায় মাদরাসার সভাপতির ধমকে সুপার অজ্ঞান  মাগুরায় সাকিবের পৃষ্ঠপোষকতায় মহান একুশ উপলক্ষে শহরে আলপনার উদ্যোগ 

সিংগাইরে শাশুড়িকে হত্যার অভিযোগে পুত্রবধূ গ্রেফতার

মঞ্জুরুল ইসলাম রতন :
মানিকগঞ্জের সিংগাইরে পুত্রবধূর ছুরিকাঘাতে শাশুড়ি তহুরা বেগম (৫৫) নিহত হয়েছেন। ঘটনাটি দেখে ফেলায় শ্বশুর সোনামুদ্দিন বিশ্বাসকেও ছুরিকাঘাতে আহত করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুত্রবধূ আয়রিন আক্তারকে (১৯) আটক করেছে সিংগাইর থানা পুলিশ।
গত মঙ্গলবার (৯ জানুয়ারি) মধ্যরাতে উপজেলার জামসা ইউনিয়নের মাটিকাটা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আয়রিন আক্তার নিহতের প্রবাসী ছেলে রাসেল বিশ^াসের স্ত্রী। ছুটি শেষে ৯ দিন আগে রাসেল প্রবাসে গিয়েছেন।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আড়াই মাস আগে রাসেল বিশ^াসের সঙ্গে মানিকগঞ্জের হরিরামপুর উপজেলার ঝিটকা গ্রামের আয়রিন আক্তারের বিয়ে হয়।
মঙ্গলবার রাতে শ^শুর ঘুমিয়ে পড়ার পর তহুরা বেগম ও আইরিন আক্তার টেলিভিশন দেখছিলেন। এসময় পারিবারিক বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে বাকবিতন্ডা শুরু হয়। এক পর্যায়ে আইরিন আক্তার তার শাশুড়ি তহুরাকে টর্চ লাইট দিয়ে মাথায় আঘাত করে। এসময় তহুরা বেগম চিৎকার দিলে আইরিন আক্তার কাপড় দিয়ে শাশুড়ির মুখ চেপে ধরে এলোপাথাড়ি ছুরিকাঘাত করে। এতে তার হাত, মুখ, মাথা ও গলায় জখম হয়। মৃত্যু নিশ্চিত করার পর লাশ ঘর থেকে টেনে বের করে বারান্দার শৌচাগারে নিয়ে আসে আইরিন।
সেখানে রক্তমাখা কাপড় পরিবর্তন করে লাশ গুম করার উদ্দেশে টেনে ঘরের বাইরে বের করা হয়। এ সময় শ^শুরের ঘুম ভেঙে গেলে তিনি বিষয়টি টের পান। পরে তিনি এগিয়ে গেলে তাকেও ছুরিকাঘাত করে আইরিন। এক পর্যায়ে আইরিনের হাত থেকে জোর করে ছুরি ছিনিয়ে নেন শ^শুর সোনামুদ্দিন। পরে তার চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা এসে আইরিন আক্তারকে আটক করে।
মামলার বাদী জানান, বিয়ের দুই মাস পরেই আইরিনের সঙ্গে কলেজ শিক্ষক লাল মুদ্দিনের পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক প্রকাশ পায়। এ নিয়ে পারিবারিক দ্বন্দ্বের সৃষ্টি হয়। এ অবৈধ সম্পর্কের যথেষ্ট প্রমাণও রয়েছে বলে জানান তিনি।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিংগাইর থানার উপ-পরিদর্শক (এস আই) এনামুল হক বলেন, খবর পেয়ে আইরিনকে ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তারসহ হত্যায় ব্যবহৃত টর্চ লাইট, চাকু ও রক্তমাখা শাড়ী উদ্ধার করা হয়েছে।
এ ব্যাপারে সিংগাইর থানার ওসি মো. জিয়ারুল ইসলাম বলেন, আসামী আইরিন আক্তারকে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দীর জন্য আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে বাকী আসামিকেও গ্রেপ্তার করা হবে।

ট্যাগস

মির্জাগঞ্জে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও  শহীদ  দিবসে বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির শ্রদ্ধা নিবেদন 

সিংগাইরে শাশুড়িকে হত্যার অভিযোগে পুত্রবধূ গ্রেফতার

আপডেট টাইম : ০১:২৪:১৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১০ জানুয়ারী ২০২৪

মঞ্জুরুল ইসলাম রতন :
মানিকগঞ্জের সিংগাইরে পুত্রবধূর ছুরিকাঘাতে শাশুড়ি তহুরা বেগম (৫৫) নিহত হয়েছেন। ঘটনাটি দেখে ফেলায় শ্বশুর সোনামুদ্দিন বিশ্বাসকেও ছুরিকাঘাতে আহত করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুত্রবধূ আয়রিন আক্তারকে (১৯) আটক করেছে সিংগাইর থানা পুলিশ।
গত মঙ্গলবার (৯ জানুয়ারি) মধ্যরাতে উপজেলার জামসা ইউনিয়নের মাটিকাটা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আয়রিন আক্তার নিহতের প্রবাসী ছেলে রাসেল বিশ^াসের স্ত্রী। ছুটি শেষে ৯ দিন আগে রাসেল প্রবাসে গিয়েছেন।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আড়াই মাস আগে রাসেল বিশ^াসের সঙ্গে মানিকগঞ্জের হরিরামপুর উপজেলার ঝিটকা গ্রামের আয়রিন আক্তারের বিয়ে হয়।
মঙ্গলবার রাতে শ^শুর ঘুমিয়ে পড়ার পর তহুরা বেগম ও আইরিন আক্তার টেলিভিশন দেখছিলেন। এসময় পারিবারিক বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে বাকবিতন্ডা শুরু হয়। এক পর্যায়ে আইরিন আক্তার তার শাশুড়ি তহুরাকে টর্চ লাইট দিয়ে মাথায় আঘাত করে। এসময় তহুরা বেগম চিৎকার দিলে আইরিন আক্তার কাপড় দিয়ে শাশুড়ির মুখ চেপে ধরে এলোপাথাড়ি ছুরিকাঘাত করে। এতে তার হাত, মুখ, মাথা ও গলায় জখম হয়। মৃত্যু নিশ্চিত করার পর লাশ ঘর থেকে টেনে বের করে বারান্দার শৌচাগারে নিয়ে আসে আইরিন।
সেখানে রক্তমাখা কাপড় পরিবর্তন করে লাশ গুম করার উদ্দেশে টেনে ঘরের বাইরে বের করা হয়। এ সময় শ^শুরের ঘুম ভেঙে গেলে তিনি বিষয়টি টের পান। পরে তিনি এগিয়ে গেলে তাকেও ছুরিকাঘাত করে আইরিন। এক পর্যায়ে আইরিনের হাত থেকে জোর করে ছুরি ছিনিয়ে নেন শ^শুর সোনামুদ্দিন। পরে তার চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা এসে আইরিন আক্তারকে আটক করে।
মামলার বাদী জানান, বিয়ের দুই মাস পরেই আইরিনের সঙ্গে কলেজ শিক্ষক লাল মুদ্দিনের পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক প্রকাশ পায়। এ নিয়ে পারিবারিক দ্বন্দ্বের সৃষ্টি হয়। এ অবৈধ সম্পর্কের যথেষ্ট প্রমাণও রয়েছে বলে জানান তিনি।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিংগাইর থানার উপ-পরিদর্শক (এস আই) এনামুল হক বলেন, খবর পেয়ে আইরিনকে ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তারসহ হত্যায় ব্যবহৃত টর্চ লাইট, চাকু ও রক্তমাখা শাড়ী উদ্ধার করা হয়েছে।
এ ব্যাপারে সিংগাইর থানার ওসি মো. জিয়ারুল ইসলাম বলেন, আসামী আইরিন আক্তারকে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দীর জন্য আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে বাকী আসামিকেও গ্রেপ্তার করা হবে।