ঢাকা ১১:২৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
আদমদীঘিতে শিশু ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ: গ্রেফতার-১ মহম্মদপুরে হত্যার মামলার আসামি জামিনে এসে বাদিকে মামলা তুলে নেয়ার হুমকি, পরে মারধর আ.লীগ নেতার হুমকিতে নিরাপত্তাহীনতায় আইসক্রিম ফাক্টরি মালিক কালিহাতীতে লিঙ্গ কাটার অভিযোগ স্ত্রী’র বিরুদ্ধে ফিটনেস বিহীন নৌযানে সয়লাব সদরঘাট,নেই পর্যাপ্ত দক্ষ নাবিক! ৫০ কোটি টাকার মামলা থেকে বাঁচতে প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তার পাল্টা মামলা! ফরিদপুরে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় তোলপাড় রশুনিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা পর্ষদের নব সভাপতি হলেন আবু সাঈদ মির্জাগঞ্জে আমর্ড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন) উদ্যোগে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ মাগুরার হৃদয়পুরে ফসলি জমির টপসয়েল মাটিকাটার অভিযোগ, ইউএনওর হস্তক্ষেপে কাজ বন্ধ

সাইফ আলি খানের দাড়ি বাদ দিতে খরচ হবে ৩০ কোটি টাকা

অনলাইন ডেস্ক:

বিতর্কের চোটে এবার বাদ যাবে সইফ আলি খানের দাড়ি! না, রিয়েল লাইফে নয়। বরং রিল লাইফে এবার এমনটাই ঘটতে চলেছে।

প্রভাস ও সইফ আলি খান অভিনীত ‘আদিপুরুষ’ ছবির টিজার প্রকাশ্যে আসার পর থেকেই তুমুল সমালোচনার মুখে পড়েছেন ছবির পরিচালক ওম রাউত। রাবণের হাস্যকর রূপ এবং দুর্বল ভিএফএক্স দেখে সোশ্যাল মিডিয়ায় নানা ঠাট্টা শুরু। তবে শুধু ঠাট্টা নয়, সম্প্রতি রামমন্দিরের প্রধান পুরোহিতও রাবণের রূপ দেখে তার সঙ্গে মুঘল শাসকের তুলনা করেছেন। কেউ কেউ তো সইফের রাবণের রূপের সঙ্গে বাবর ও আলাউদ্দিন খিলজির মিলও খুঁজে পাচ্ছেন। এমনকী, ছবি নিষিদ্ধ করার ডাকও তুলেছিল রামমন্দিরের প্রধান পুরোহিত।

সূত্র থেকে পাওয়া খবর অনুযায়ী, ছবি নিয়ে নির্মাতারা আশাবাদী। কিন্তু বিতর্কের কারণে ভিএফএক্স-এর কাজ তাঁদের নতুন করে করতে হচ্ছে। শুধু সইফ নয়, ছবির আরও কিছু চরিত্রকে নতুন করে তৈরি করার কথা ভেবেছেন তাঁরা। ফলে পোস্ট প্রডাকশনের খরচ বেড়েছে আরও। খবর অনুযায়ী, ভুল সংশোধন করতে এখন প্রযোজনা সংস্থাকে খরচ করতে হবে ৩০ কোটি টাকা!

বিতর্ক নিয়ে মুখ খুলেছিলেন ছবির পরিচালত ওম রাউতও। তাঁর কথায়, ”রাবণ তো আসলে শয়তানের প্রতিরূপ। শয়তানদের তো এরকমই দেখতে হয়। শয়তানের চোখে লালসা থাকে। ঠিক যেমন রাবণের। আদিপুরুষে এরকমই রাবণকে ধরার চেষ্টা করা হয়েছে। আমাদের এতদিন ধরে দেখে আসা রাবণের থেকে অনেকাংশেই আলাদা এই রূপ। এটাই আমাদের চ্যালেঞ্জ ছিল। এই নিয়ে অযথা বিতর্কের মনে হয় প্রয়োজন নেই।’ ওম আরও জানালেন, ”সব সমালোচনা কানে এসেছে। সব কিছুই মাথায় রেখে এগোচ্ছি। যাঁরা এই ছবির টিজার দেখে সমালোচনা করছেন, তাঁদের বলব, ছবিটা পুরো দেখুন। হতাশ হবেন না।”

অন্যদিকে, রাজ ঠাকরের মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনার সদস্যরা একেবারেই মেনে নিচ্ছেন না আদিপুরুষ ছবি নিয়ে তৈরি হওয়া বিতর্ককে। মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনার নেতা আমেয়া খোপকার জানান, ‘যে বিজেপি নেতারা আদিপুরুষকে নিয়ে বিতর্ক করছেন, তাঁরা কি বাস্তবে রাবণকে দেখেছেন? তাঁদের কাছে কি রাবণের কোনও ছবি আছে? পরিচালককে সবসময়ই তাঁর সৃষ্টির ক্ষেত্রে স্বাধীনতা দেওয়া উচিত। পরিচালক ওম হিন্দুত্ববাদে বিশ্বাসী। সে কখনওই রামায়ণের ভুল ব্যাখ্যা করবেন না।’

জনপ্রিয় সংবাদ

আদমদীঘিতে শিশু ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ: গ্রেফতার-১

সাইফ আলি খানের দাড়ি বাদ দিতে খরচ হবে ৩০ কোটি টাকা

আপডেট টাইম : ০৭:৪৪:২১ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৫ নভেম্বর ২০২২

অনলাইন ডেস্ক:

বিতর্কের চোটে এবার বাদ যাবে সইফ আলি খানের দাড়ি! না, রিয়েল লাইফে নয়। বরং রিল লাইফে এবার এমনটাই ঘটতে চলেছে।

প্রভাস ও সইফ আলি খান অভিনীত ‘আদিপুরুষ’ ছবির টিজার প্রকাশ্যে আসার পর থেকেই তুমুল সমালোচনার মুখে পড়েছেন ছবির পরিচালক ওম রাউত। রাবণের হাস্যকর রূপ এবং দুর্বল ভিএফএক্স দেখে সোশ্যাল মিডিয়ায় নানা ঠাট্টা শুরু। তবে শুধু ঠাট্টা নয়, সম্প্রতি রামমন্দিরের প্রধান পুরোহিতও রাবণের রূপ দেখে তার সঙ্গে মুঘল শাসকের তুলনা করেছেন। কেউ কেউ তো সইফের রাবণের রূপের সঙ্গে বাবর ও আলাউদ্দিন খিলজির মিলও খুঁজে পাচ্ছেন। এমনকী, ছবি নিষিদ্ধ করার ডাকও তুলেছিল রামমন্দিরের প্রধান পুরোহিত।

সূত্র থেকে পাওয়া খবর অনুযায়ী, ছবি নিয়ে নির্মাতারা আশাবাদী। কিন্তু বিতর্কের কারণে ভিএফএক্স-এর কাজ তাঁদের নতুন করে করতে হচ্ছে। শুধু সইফ নয়, ছবির আরও কিছু চরিত্রকে নতুন করে তৈরি করার কথা ভেবেছেন তাঁরা। ফলে পোস্ট প্রডাকশনের খরচ বেড়েছে আরও। খবর অনুযায়ী, ভুল সংশোধন করতে এখন প্রযোজনা সংস্থাকে খরচ করতে হবে ৩০ কোটি টাকা!

বিতর্ক নিয়ে মুখ খুলেছিলেন ছবির পরিচালত ওম রাউতও। তাঁর কথায়, ”রাবণ তো আসলে শয়তানের প্রতিরূপ। শয়তানদের তো এরকমই দেখতে হয়। শয়তানের চোখে লালসা থাকে। ঠিক যেমন রাবণের। আদিপুরুষে এরকমই রাবণকে ধরার চেষ্টা করা হয়েছে। আমাদের এতদিন ধরে দেখে আসা রাবণের থেকে অনেকাংশেই আলাদা এই রূপ। এটাই আমাদের চ্যালেঞ্জ ছিল। এই নিয়ে অযথা বিতর্কের মনে হয় প্রয়োজন নেই।’ ওম আরও জানালেন, ”সব সমালোচনা কানে এসেছে। সব কিছুই মাথায় রেখে এগোচ্ছি। যাঁরা এই ছবির টিজার দেখে সমালোচনা করছেন, তাঁদের বলব, ছবিটা পুরো দেখুন। হতাশ হবেন না।”

অন্যদিকে, রাজ ঠাকরের মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনার সদস্যরা একেবারেই মেনে নিচ্ছেন না আদিপুরুষ ছবি নিয়ে তৈরি হওয়া বিতর্ককে। মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনার নেতা আমেয়া খোপকার জানান, ‘যে বিজেপি নেতারা আদিপুরুষকে নিয়ে বিতর্ক করছেন, তাঁরা কি বাস্তবে রাবণকে দেখেছেন? তাঁদের কাছে কি রাবণের কোনও ছবি আছে? পরিচালককে সবসময়ই তাঁর সৃষ্টির ক্ষেত্রে স্বাধীনতা দেওয়া উচিত। পরিচালক ওম হিন্দুত্ববাদে বিশ্বাসী। সে কখনওই রামায়ণের ভুল ব্যাখ্যা করবেন না।’